আমাদের করোনার সঙ্গে বসবাসের অভ্যাস রপ্ত করতে হবে : কাদের

সীমিত পরিসরে বেশ কিছু প্রতিষ্ঠান খুলে দেয়া হয়েছে। চলাচলে বিধি-নিষেধ কিছুটা শিথিল করেছে সরকার। কিন্তু অনেকেই স্বাস্থ্যবিধি, সামাজিক দুরত্ব, শারীরিক দূরত্ব কঠোরভাবে মেনে চলার নির্দেশনা মানছেন না।

এতে করে আরো বড় বিপর্যয় আসতে পারে বলে মনে করছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সড়ক পরিবহন মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। মঙ্গলবার রাজধানীর সংসদ ভবন এলাকায় নিজের সরকারি বাসভবনে সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন তিনি।

তিনি বলেন, ‘বিশ্বে বর্তমানে ২১২টি দেশ ও অঞ্চলে করোনাভাইরাসের বিস্তার ঘটেছে। এর মাঝে বাংলাদেশের অবস্থান সর্বশেষ ৩৪ তম। প্রতিবেশী রাষ্ট্র ভারত-পাকিস্তানসহ পৃথিবীর অন্যান্য দেশের তুলনায় আমাদের অবস্থান ভালো হলেও পরিস্থিতি ক্রমশ অবনতিশীল। ভাইরাসের সংক্রমণ বাড়ছে বলেই স্পষ্টত প্রতীয়মান হচ্ছে। এই রোগ বা সংক্রমণ থেকে রেহাই পেতে প্রতিকারের চেয়ে প্রতিরোধই উত্তম ‌পন্থা। এমন সংকটে আমাদের সামাজিক দূরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার কোনো বিকল্প নেই।’

তিনি আরো বলেন, ‘আমরা লক্ষ করছি, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সাধারণ ছুটি কিছু কিছু ক্ষেত্রে শিথিল করার পর বাণিজ্য কেন্দ্র, ফেরিঘাট, তৈরি পোশাক শিল্প ও অন্যান্য কারখানাসহ সর্বত্র স্বাস্থ্যবিধি, সামাজিক দূরত্ব, শারীরিক দূরত্ব কঠোরভাবে মেনে চলার আহ্বান উপেক্ষিত হচ্ছে।’

সবাইকে সাবধান করে তিনি বলেন, ‘আমাদের ভুলে গেলে চলবে না, সামান্য উপেক্ষা বড় ধরনের বিপর্যয় ডেকে আনবে। তাই এখন থেকেই সতর্ক থাকার অনুরোধ করছি। করোনাভাইরাসের সঙ্গে বসবাসের অভ্যাস রপ্ত করতে হবে আমাদের সকলকে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সর্বশেষ খবর