করোনায় মৃত্যু ১৭৭ জনের, লকডাউনে দুর্ঘটনায় নিহত ২১১

করোনাভাইরাসের কারণে লকডাউনে রয়েছে বাংলাদেশ। করোনার কারণে এক মাসের বেশি সময় ধরে দেশে গণপরিবহন বন্ধ রয়েছে। যেখানে দেশে করোনায় মারা গেছেন ১৭৭ জন। সেখানে এই লকডাউনের মাঝে দুর্ঘটনায় প্রাণ গেছে ২১১ জনের ও আহত হয়েছেন ২৭৭ জন।

এছাড়াও নৌ-পথে ৮টি দুর্ঘটনায় ৮ জন নিহত, ২ জন আহত এবং ২ জন নিখোঁজ হয়েছেন বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ যাত্রী কল্যাণ সমিতি।

রোববার (০৩ মে) বাংলাদেশ যাত্রী কল্যাণ সমিতির সড়ক দুর্ঘটনা মনিটরিং সেলের পর্যবেক্ষণ প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে। দেশের সংবাদপত্রে প্রকাশিত প্রতিবেদন বিশ্লেষণ করে এদিন গণমাধ্যমে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে সংগঠনটি এই প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গত এপ্রিল মাসে সড়কে দুর্ঘটনায় আক্রান্ত ৬৯ জন পথচারী, ৬৭ জন চালক, ৩২ জন পরিবহন শ্রমিক, ১৩ জন শিক্ষার্থী, ৩ জন শিক্ষক, ৪৬ জন আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য, ২৭ জন নারী, ২১ জন শিশু, ১ জন সাংবাদিক এবং ১ জন রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মী।

৫০ জন চালক, ৬৪ জন পথচারী, ২২ জন নারী, ১২ জন ছাত্র-ছাত্রী, ২০ জন পরিবহন শ্রমিক, ১৮ জন শিশু, ১ জন রাজনৈতিক দলের নেতাকর্মী, ২ জন আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য, ৩ জন শিক্ষক ও ১ জন সাংবাদিক দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন।

এসব দুর্ঘটনায় জড়িত ছিল সর্বোচ্চ ৯৭টি দুর্ঘটনা ট্রাক ও কাভার্ডভ্যানে, ৬৩টি দুর্ঘটনা মোটরসাইকেলে, ২৯টি ব্যাটারিচালিত রিকশা ও ইজিবাইক, ২৮টি নসিমন ও করিমন, ২২টি সিএনজিচালিত অটোরিকশা, ১৭টি প্রাইভেটকার ও ১টি বাস।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সর্বশেষ খবর